ট্রাক উল্টে পড়লো ইটভাটার ঘরের ওপর, ঘুমন্ত ১৩ শ্রমিক নিহত

কুমিল্লা সংবাদদাতা, পিটিবিনিউজ.কম
কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে একটি ইটভাটায় কয়লাবাহী ট্রাক উল্টে শ্রমিকদের থাকার ঘরের ওপর পড়ে ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো দুই জন। তাদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আজ শুক্রবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে চৌদ্দগ্রাম উপজেলার ঘোলপাশা ইউনিয়নের নারায়ণপুর এলাকায় কাজী অ্যান্ড কোং নামের একটি ইটভাটায় এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে কুমিল্লা জেলা প্রশাসক আবুল ফজল মীর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

আহত দু’জনকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহতরা সবাই ইটভাটার শ্রমিক। তারা কাজী অ্যান্ড কোং ইটভাটায় শ্রমিকদের থাকার ঘরে ঘুমাচ্ছিলেন। তাদের বাড়ি নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলায়।

নিহত শ্রমিকেরা হলেন- নীলফামারী জেলার জলঢাকা উপজেলার নিজপাড়া গ্রামের সুরেশ চন্দ্র রায়ের ছেলে রঞ্জিত চন্দ্র রায় (৩০), মানিক চন্দ্র রায়ের ছেলে তরুণ চন্দ্র রায় (২৫), জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে মো. সেলিম (২৮), রামপ্রসাদের ছেলে বিপ্লব (১৯), কিশোর চন্দ্র রায়ের ছেলে শংকর চন্দ্র রায় (২২), অমর চন্দ্র রায়ের ছেলে দীপু চন্দ্র রায় (১৯) ও কামিক্ষ্যা চন্দ্র রায়ের ছেলে অমিত চন্দ্র রায় (২০), একই উপজেলার পাঠানপাড়া গ্রামের নুর আলমের ছেলে মোরসালিন (১৮) ও ফজলুল করিমের ছেলে মো. মাসুম (১৮), শিমুলবাড়ি গ্রামের মনোরঞ্জন চন্দ্র রায় (১৯) এবং রাজবাড়ী গ্রামের দীনেশ চন্দ্র রায়ের ছেলে মৃণাল চন্দ্র রায় (২১), খোকা চন্দ্র রায়ের ছেলে বিকাশ চন্দ্র রায় (২৮) ও ধনু চন্দ্র রায়ের ছেলে কনক চন্দ্র রায় (৩৫)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে ট্রাকটি উল্টে ইটভাটার শ্রমিকদের থাকার ঘরের ওপর পড়ে। এতে ঘুমন্ত অবস্থায় থাকা ১২ জন শ্রমিক ঘটনাস্থলেই মারা যান। হাসপাতালে নেওয়ার পথে আরেক শ্রমিকের মৃত্যু হয়।

দুর্ঘটনার পর থেকে চালক ও হেলপার পলাতক রয়েছেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।