উড়োজাহাজে চড়তে ভয়, তামিম-মাশরাফির ৬ ঘণ্টার সড়কযাত্রা

ফাইল ছবি

স্পোর্টস ডেস্ক, পিটিবিনিউজ.কম
ছোট উড়োজাহাজে চড়তে ভয় পান ওয়ানডে অধিনায় মাশরাফি বিন মুর্তজা ও ওপেনার তামিম ইকবাল। তাই এক ঘণ্টার আকাশ যাত্রা ছেড়ে বেছে নিলেন ছয় ঘণ্টার সড়কযাত্রা। অকল্যান্ড থেকে শেষ পর্যন্ত মাইক্রোবাস নিয়ে নেপিয়ার পৌঁছেছেন এই দুই বাংলাদেশি তারকা।

উড়োজাহাজের ভয় তামিমের জন্য নতুন কিছু নয়। বাংলাদেশের এই মারকুটে ওপেনার মাঠে যতোই সাহসী হন না কেনো, আকাশযাত্রায় তিনি বেশ ভীতই হয়ে পড়েন। দেশের মধ্যেও চট্টগ্রাম থেকে ঢাকা কিংবা অন্য কোনো শহরে যেতে তিনি বড় উড়োজাহাজের ফ্লাইট বেছে নেন। মাশরাফিও নিউজিল্যান্ডে ছোট বিমানের বাম্পিংকে বড় ভয় করেন।

নিউজিল্যান্ডের পত্রিকা স্টাফ তামিম ও মাশরাফির এই সড়কযাত্রার বিষয়ে লিখেছে, ‘দুজনই অনেকবার নিউজিল্যান্ড সফর করেছেন। তামিম এর আগেও এই উড়োজাহাজে চড়েছেন। কিন্তু মনে হচ্ছে, ছোট উড়োজাহাজে করে আঞ্চলিক রুটের এই আকাশযাত্রায় তাঁরা এখনো ভয় পান।’

নিউজিল্যান্ডে বাতাসের একটা ব্যাপার আছে। দেশটিতে প্রায় সব ধরনের উড়োজাহাজেই ঝাঁকুনি খুব সাধারণ ঘটনা। এটি ওয়েলিংটনেই বেশি হয়। এই ঝাঁকুনিকেই ভয় মাশরাফি-তামিমের। অকল্যান্ড থেকে ওয়েলিংটনে উড়োজাহাজ পরিবর্তন করেই নেপিয়ারে যেতে হয় দেখেই কাল এই দুই তারকা সড়কযাত্রার ধকলকেই শ্রেয় মনে করেছেন। ২০১৭ সালের সবশেষ নিউজিল্যান্ড সফরেও এ দুজন একইভাবে সড়কযাত্রা বেছে নিয়েছিলেন।

তামিম-মাশরাফি ভয় পেলেও তাঁদের অন্য দুই সঙ্গী রুবেল হোসেন ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন উড়োজাহাজে করেই নেপিয়ার পৌঁছান। এবার কয়েকটি দলে ভাগ হয়ে নিউজিল্যান্ড পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল। আগামীকাল বাংলাদেশ সময় সকাল সাতটায় নেপিয়ারে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে মাঠে নামবেন মাশরাফিরা।