‘বিএনপির নেত্রীকে প্রধানমন্ত্রী শাস্তি দেননি, দিয়েছেন আদালত’

ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক, পিটিবিনিউজ.কম
তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানিয়ে রুহুল কবির রিজভী আইন ও আদালতের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপির নেত্রীকে শাস্তি দেননি। শাস্তি দিয়েছেন আদালত। তাই আদালতের মাধ্যমেই খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে।’

আজ রোববার বিকালে চট্টগ্রামে অমর একুশে বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব মন্তব্য করেন তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।

এম এ আজিজ স্টেডিয়াম-সংলগ্ন জিমনেসিয়ামের মাঠে ১৯ দিনব্যাপী এ বইমেলার আয়োজন করে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন।

বইমেলার অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। রিজভী প্রকারান্তরে এটাই বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী যেনো প্রধান বিচারপতির দায়িত্ব পালন করেন। কিন্তু তাঁকে মুক্তি দেয়ার এখতিয়ার প্রধানমন্ত্রীর নেই। এই আহ্বানের মাধ্যমে রুহুল কবির রিজভী ও বিএনপি দলগতভাবে আইন ও আদালতের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করেছে।

রুহুল কবির রিজভী বিএনপির চেয়ারপারসনকে অসুস্থ উল্লেখ করলেও তা মনে হচ্ছে না বলে জানান আওয়ামী লীগের অন্যতম মুখপাত্র হাছান মাহমুদ। আদালতে নেওয়ার সময় বিএনপি চেয়ারপারসনের যে চেহারা টিভিতে দেখলাম, তাতে অসুস্থতার ছাপ দেখা যায়নি। সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য গত এক বছরে আইনি লড়াইয়ে বিএনপির আন্তরিকতার অভাব আছে বলে সাধারণ মানুষ মনে করেন বলে অনুষ্ঠানে জানান তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ।