তিন জেলায় চার নদীর খনন কাজ শুরু করেছে পাউবো

পঞ্চগড় জেলার তেঁতুলিয়া উপজেলার ভেরসা নদীর খনন কাজ শুরু। ছবি: সংগৃহিত

পিটিবিনিউজ.কম ডেস্ক
বিলুপ্ত নদ-নদী উদ্ধার ও খননের মাধ্যমে সেগুলোর নাব্যতা ফিরিয়ে আনার ধারাবাহিক কর্মসূচির অংশ হিসেবে দেশের তিনটি জেলায় চারটি নদীর খনন কাজ শুরু হয়েছে। পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) অধীনে আজ বুধবার পঞ্চগড়ে ভেরসা ও পাথরাজ, কক্সবাজারে ঈদগাঁও খাল এবং নীলফামারীতে ধাইজান নদীর খনন কাজের উদ্বোধন হয়।

প্রসঙ্গত, পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অধীনে পানি উন্নয়ন বোর্ড সারা দেশে ছোটনদী, খাল, জলাশয় পুনঃখনন কাজ হাতে নিয়েছে। চলমান এ প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে ২,২৭৯ কোটি টাকা। এই প্রকল্পের আওতায় আজ চারটি নদীর খনন কাজ শুরু হলো।

তিন জেলা থেকে পিটিবিনিউজ.কম সিংবাদদাতাদের পাঠানো প্রতিবেদন:

পঞ্চগড়
পঞ্চগড়ে ১৫০ কোটি টাকা ব্যয়ে পাঁচটি নদীর ১৬৪ কিলোমিটার (কি.মি.) পুনঃখনন কাজ শুরু হয়েছে। বুধবার বিকেলে জেলার তেঁতুলিয়া উপজেলার ভেরসা এবং সকালে বোদা উপজেলার পাথরাজ নদীর খনন কাজ উদ্বোধনের মাধ্যমে পানি উন্নয়ন বোর্ড এই প্রকল্পের কাজ শুরু করলো।খনন কাজের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক সাবিনা ইয়াসমিন।

সরকারের ডেল্টা প্ল্যানের আওতায় এই প্রকল্পের অধীনে তেঁতুলিয়া উপজেলার ভেরসা নদীর ১০ কিলোমিটার, সদর উপজেলার চাওয়াই নদীর ২০ কিলোমিটার, করতোয়া নদীর ৭৮ কিমি, দেবীগঞ্জ উপজেলার বুড়ি তিস্তার ২০ কিলোমিটার, বোদা উপজেলার পাথরাজ নদীর ৩০ কিলোমিটার এবং আটোয়ারী উপজেলার বড়সিংগিয়া খালের ছয় কিলোমিটার খনন করা হবে।

পাউবোর পঞ্চগড়ের নির্বাহী প্রকৌশলী মিজানুর রহমান জানান, ব-দ্বীপ পরিকল্পনা ২১০০ বাস্তবায়নের প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের আওতায় প্রকল্পটি বাস্তবায়নের ফলে ছোট নদী, খাল এবং জলাশয়গুলোতে পানি ধারণক্ষমতা বৃদ্ধি পাবে। এর মাধ্যমে বছরব্যাপি সেচসুবিধা বৃদ্ধির ফলে কৃষি উৎপাদনও বৃদ্ধি হবে। নদী ও খালগুলো পুনরুজ্জীবীত করে মৎস্যসম্পদ বৃদ্ধিসহ জীব-বৈচিত্র্য সংরক্ষণ করা হবে। এই প্রকল্প দেশে অর্থনৈতিক উন্নয়নেও ব্যাপক ভূমিকা রাখবে।

তেতুঁলিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সানিউল ফেরদৌসের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গিয়াসউদ্দিন আহমেদ, পানি উন্নয়ন বোর্ডের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী এনায়েতুল্লাহ, নির্বাহী প্রকৌশলী মিজানুর রহমান, তেঁতুলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল ইসলামসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

কক্সবাজার
জলবায়ু পরিবর্তনসহ একুশ শতকের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার মাধ্যমে টেকসই অর্থনৈতিক উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে সারা দেশে ছোটনদী, খাল, জলাশয় পুনঃখনন কাজ চলছে বলে জানিয়েছেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব কাজী আবদুর রহমান।

কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও খাল পুন:খনন কাজের উদ্বোধন।ছবি: সংগৃহিত

বুধবার সকালে কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও খাল পুন:খনন কাজের উদ্বোধনকালে তিনি এ কথা বলেন।

উপ-সচিব জানান, ২,২৭৯ কোটি টাকা ব্যয়ে পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অধীনে ও পাউবোর তত্ত্বাবধানে ছোটনদী, খাল, জলাশয় পুন:খনন প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। এর অংশ হিসেবে কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও খাল পুনঃখনন কাজ উদ্বোধন করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে পাউবোর অতিরিক্ত মহাপরিচালক দেলোয়ার হোসেনসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

নীলফামারী
নীলফামারীতে ধাইজান নদী খনন কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে জেলার জলঢাকা উপজেলার খুটামারা ইউনিয়নের পশ্চিম খুটামারা গ্রামে এই খনন কাজের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন।

নীলফামারীতে ধাইজান নদীর খনন কাজের উদ্বোধন।ছবি: সংগৃহিত

পাউবোর সৈয়দপুরের নির্বাহী প্রকৌশলী কমলকৃষ্ণ চন্দ্র সরকারের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন জেলা মৎস্য কর্মকর্তা আব্দুর রউফ, জলঢাকা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সুজাউদ্দৌলা, জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আবুল কালাম আযাদ, খুটামারা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সাঈদ শামীম প্রমুখ।