চট্টগ্রামে বড় জাহাজের ধাক্কায় লাইটার জাহাজডুবি

ফাইল ছবি

চট্টগ্রাম সংবাদদাতা, পিটিবিনিউজ.কম
চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে বড় জাহাজ ধাক্কায় এমভি চর শ্যামাইল নামে পুরোনো লোহা (স্ক্র্যাপ) বোঝাই একটি লাইটার জাহাজ ডুবে গেছে। আজ শনিবার বেলা ১১টা ৭ মিনিটের দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। বড় একটি জাহাজ নোঙর তুলে অবস্থান নেওয়ার সময় লাইটারটিকে ধাক্কা দিলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

লাইটার জাহাজ চর শ্যামাইল আনুমানিক ৪০০ টন পুরোনো লোহা বোঝাই ছিলো। দুর্ঘটনার পর নাবিকেরা আরেকটি লাইটার জাহাজে উঠে রক্ষা পান বলে জানা গেছে।

বন্দর ও লাইটার জাহাজ পরিচালনাকারী ওয়াটার ট্রান্সপোর্ট সেল সূত্রে জানা গেছে, বহির্নোঙরের আলফা অ্যাঙ্করেজে নোঙর করে রাখা ‘এমভি নিউ লিগ্যাসি’ জাহাজ থেকে স্ক্র্যাপ স্থানান্তর করে ছোট আকারের জাহাজ এমভি চর শ্যামাইলে রাখা হচ্ছিলো। এ সময় আরেকটি বড় জাহাজ নোঙর তুলে অন্য জায়গায় অবস্থান নেওয়ার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে এমভি নিউ লিগ্যাসি জাহাজটিকে ধাক্কা দেয়। এ সময় নিউ লিগ্যাসির পাশে পণ্য স্থানান্তর করতে থাকা চর শ্যামাইল জাহাজটি ধাক্কা খেয়ে ডুবে যায়।

ওয়াটার ট্রান্সপোর্ট সেলের নির্বাহী পরিচালক মাহবুবুর রশীদ জানান, ছোট জাহাজটিতে ৩০০ থেকে ৪০০ টন স্ক্র্যাপ বোঝাই করার পরই এই দুর্ঘটনা ঘটে।

বন্দর কর্মকর্তারা জানান, এমভি নিউ লিগ্যাসি জাহাজটিতে করে চট্টগ্রামের বিএসআরএম গ্রুপ ৩২ হাজার ৫০০ টন স্ক্র্যাপ আমদানি করে। জাহাজটির পানির নিচের অংশে পানির গভীরতা (ড্রাফট) ১০ মিটার। সাড়ে নয় মিটারের বেশি গভীরতার জাহাজ বন্দর জেটিতে ভেড়ানো যায় না। এ কারণে বহির্নোঙরে থাকা অবস্থায় জাহাজটি থেকে সাড়ে আট হাজার টন স্ক্র্যাপ লাইটার জাহাজে স্থানান্তর করে জেটিতে ভেড়ানোর কথা ছিলো। লাইটার জাহাজে স্থানান্তর করার সময়ই এই দুর্ঘটনা ঘটেছে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.