ভারতে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, পিটিবিনিউজ.কম। ওয়েবসাইট: www.ptbnewsbd.com

0
বামে মীরা কুমার ও ডানে রামনাথ কোবিন্দ। ফাইল ছবি।

ভারতের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। স্থানীয় সময় আজ সোমবার সকাল ১০টায় ভোট শুরু হয়, চলবে বিকাল ৫টা পর্যন্ত। এই নির্বাচনের প্রার্থী দুইজন। তাঁরা হলেন- বিহারের সাবেক গভর্নর বিজেপির নেতৃত্বাধীন জোট ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্সের রামনাথ কোবিন্দ ও লোকসভার সাবেক স্পিকার ইউনাইটেড প্রগ্রেসিভ অ্যালায়েন্সের মীরা কুমার। সরাসরি জনগণের ভোটে নয় বরং দেশটিতে ইলেক্টোরাল কলেজের মাধ্যমে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হবে। ইলেক্টোরাল কলেজে চার হাজার ৮৯৬ জন সদস্য। এর মধ্যে লোকসভায় ৫৪৩ জন, রাজ্যসভায় ২৩৩ জন এবং স্টেট অ্যাসেম্বলির মোট সদস্য চার হাজার ১২০ জন।

স্বভাবতই প্রশ্ন দেখা দিয়েছে- কে হচ্ছেন ভারতের ১৪তম প্রেসিডেন্ট? কোবিন্দ নাকি মীরা। তবে বিজেপি ও তাদের শরিক দলগুলোর মনোনীত প্রার্থী হচ্ছেন রামনাথ কোবিন্দ। ফলে মীরার চেয়ে কোবিন্দ এগিয়ে রয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে। দেশটির ৪৮৫২ জন সাংসদ ও বিধায়ক ভোট দিয়ে প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত করবেন। সংখ্যার বাস্তবতায় অনেকটাই এগিয়ে এনডিএ মনোনীত প্রার্থী রামনাথ কোবিন্দ। মীরা কুমারকে সামনে রেখে বিরোধীরাও লড়াইয়ে প্রস্তুত।

রামনাথ কোবিন্দের জেতার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আত্মবিশ্বাসী বলে জানান তিনি। অপরদিকে, কংগ্রেস সভাপতি সোনিয়া গান্ধীর ভাষ্য, এই লড়াই মতাদর্শের। লড়াই হবে সাম্প্রদায়িকতা ও বিভেদকামী শক্তির বিরুদ্ধে।

দেশটির বিভিন্ন স্থানে ৩২টি কেন্দ্রে নেওয়া হচ্ছে ভোট। দুইটি আলাদা রঙের ব্যালট পেপারে নির্বাচন কমিশনের বিশেষ কলমে ভোট দিতে হবে। এ ভোটের ফল ঘোষণা হবে ২০ জুলাই। আর নতুন চর্তুদশ রাষ্ট্রপতির শপথ আনুষ্ঠিত হবে ২৪ জুলাই। ৭১ বছর বয়সী কোবিন্দ বিহারের রাজ্যপালের দায়িত্ব ছিলেন। দুইবার রাজ্যসভার সাংসদের দায়িত্বও পালন করেন তিনি। অন্যদিকে জগজীবন রামের কন্যা ৭২ বছরের মীরা কুমার লোকসভার স্পিকারের দায়িত্ব পালন করেছেন। মন্ত্রিত্বের পাশপাশি পাঁচ বার লোকসভার সাংসদের দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

অন্যদিকে এর আগে বিজেপির কোনও সদস্য রাষ্ট্রপতি হিসেবে নির্বাচিত হননি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকার ক্ষমতায় আসার পর বিজেপি দল এবং তার আদর্শগত অভিভাবক আরএসএস দুই পক্ষের দাবি ছিল একজন বিজেপি নেতাকে রাষ্টপ্রতি পদে প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করার জন্য। সূত্র: এনডিটিভি, বিবিসি, টাইমস অব ইন্ডিয়া।

সম্পাদনা : সূর্য দাস।

Share on FacebookShare on Google+Tweet about this on TwitterPrint this page